নিম্ন রক্তচাপ এর কারণ এবং ব্যবস্থাপনা

নিম্ন রক্তচাপ বা ‘লো প্রেশার’ উচ্চ রক্তচাপের মতো আতঙ্কের কারণ হয় না ঠিকই , তবে এটি মানবীয় ঐতিহ্যগত জীবনকে ব্যাহত করে। সুতরাং যদি আপনি নিম্ন রক্তচাপের কারণ টি জানেন তাহলে এটি আপনার জন্য সহায়ক হবে।

অল্পতেই/অকারণেই ক্লান্ত? 

কিছু কারণে বা হঠাৎ করে আপনি কি ক্লান্ত বোধ করেন, হঠাৎ করে কি চোখ এ ঝাপসা দেখা শুরু করেন ? এমন হলেই আপনার রক্তচাপ/প্রেসার ‘চেক’ করিয়ে নাও কর্তব্য। এই ক্ষেত্রে, ডাক্তার এর সাথে নিন্ম রক্তচাপ /লো প্রেসার এর সম্ভাব্য কারণগুলি সম্পর্কে পরামর্শ করতে হবে।

বয়ঃসন্ধিকাল

ডা. বডো শিফমান জানান বয়ঃসন্ধিকালে ছেলে-মেয়েরা যখন লম্বা হতে শুরু করে তখন শরীরে রক্তের চাপ কমতে পারে, যেটি কিনা শরীরে হরমোন পরিবর্তনের সাথে সংযুক্ত ৷ তবে এটি নিয়ে ভাবনার কিছু নেই৷ কারণ এই সম্যসাটি নিজে থেকেই চলে যায়৷৷

বিভিন্ন ওষুধ এর প্রভাব

উচ্চ রক্তচাপের ওষুধ সেবন এর কারণেও, অনেক সময় শরীর এ দুর্বলতার অনুভূতি হতে পারে কারণ এ সময় প্রেসার কমে যাই । এটি সাধারণত ঔষধের প্রভাব কম /বেশি অথবা অতিরিক্ত ঔষধ সহ্য না হবার কারণ এ হয়ে পারে । তবে এই ক্ষেত্রে, ডাক্তারের পরামর্শ অনুসরণ করা উচিত।

বিভিন্ন অসুখের প্রভাব

অন্যান্য রোগ যেমন ডায়াবেটিস রোগ থাকলেও রক্তের চাপ কখনো কখনো কমে যেতে পারে৷ রক্তে চিনি/সুগার এর মাত্রা বেড়ে গেলে অনেক সময় এটি নার্ভ ধমনীকে ‘কন্ট্রোল’ করে থাকে , যার ফলে তা নার্ভের ক্ষতি করে৷ এরকম পরিস্থিতিতে রক্তচাপ কমে যাই এবং তা নিচের দিক এ নেমে যাই , অর্থাৎ পায়ে নেমে যেতে পারে৷

 অতিরিক্ত মানসিক চাপ

ডা. ভল্ফগাং ফন শাইড্ট জানান হঠাৎ করে কোনো সমস্যা বা অন্য কোনো মানসিক অবস্থার কারণেও মনের ওপর প্রচণ্ড চাপ পড়ে, আর এর ফলেও রক্তের চাপ একেবারে নেমে গিয়ে ‘প্যানিক অ্যাটাক’ হতে পারে৷ অনেক কারণেই প্রেশার কমে যেতে পারে৷ তাই দুই/তিন সপ্তাহ অন্তর অন্তর প্রেশার মাপিয়ে নেওয়া এবং তা একটি ‘চার্ট’ করে লিখে রাখা খুব জরুরি৷ শুধু মাত্র বিশেষজ্ঞের পক্ষেই এর পেছনের কারণগুলি খুঁজে বের করা সম্ভব

শরীরচর্চা / ব্যায়াম

কিছুটা রক্তচাপ কখনো কমে গেলে ও সাধারণত ভয়ের তেমন কোনো কারণ থাকে না৷ তবে এক্ষেত্রেও সতর্ক হওয়াটা জরুরি ৷ তাছাড়া নিয়মিত হাঁটাচলা/ব্যায়াম/কিছুটা শরীরচর্চা করলে সহজেই রক্তের চাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখা যেতে পারে ৷ আর ‘হাই’ বা ‘লো’ প্রেসার যাই হোক না কেন নিয়মিত ব্যায়াম করা দু’রকম প্রেশারের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য

Add a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *